এক ম্যাচে রোনালদোর দুই রেকর্ড, রিয়ালের জয়

প্রকাশের সময়: ১০:২৮ পূর্বাহ্ন - বৃহঃ, ডিসেম্বর ৭, ২০১৭

real

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্ক : ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর রেকর্ডময় রাতে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। একটি নয়, একই ম্যাচে দুটি দুর্দান্ত রেকর্ড গড়েছেন তারকা এ ফুটবলার। যেখানে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগে গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে বুরুশিয়া ডর্টমুন্ডকে ৩-২ গোলে হারিয়েছে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা।

ঘরের মাঠ সান্থিয়াগো বার্নাব্যুতে গ্রুপের শেষ খেলায় আসর থেকে ইতোমধ্যে বিদায় নেওয়া জার্মান জায়ান্টদের আতিথিয়েতা জানায় রিয়াল। ম্যাচটি এক পর্যায়ে সমতা থাকলেও শেষ পর্যন্ত জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা।

রিয়ালের হয়ে এদিন একটি করে গোল করেন বোরজা মায়োরাল, রোনালদো ও লুকাস ভাজকুয়েজ। তবে পিছিয়ে পড়া বুরুশিয়ার হয়ে জোড়া গোল করেও দলের হয়ে হার এড়াতে পারেননি পিয়েরে-এমরিক আবামেয়াং।

এদিন ম্যাচের আট মিনিটেই মায়োরালের গোলে লিড পায় রিয়াল। আর চার মিনিট পরে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন পর্তুগাল অধিনায়ক রোনালদো। এ গোলের ফলে ইতিহাসের প্রথম ফুটবলার হিসেবে চ্যাম্পিয়নস লিগের গ্রুপ পর্বের ছয় ম্যাচেই গোল করার অনন্য এক কীর্তি গড়লেন তিনি।

১৯৯২-৯৩ মৌসুমে শুরু হওয়া চ্যাম্পিয়নস লিগ নাম করনের পর এটিই এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বড় রেকর্ড। চলতি মৌসুমে এখন পর্যন্ত তার গোলের সংখ্যা নয়টি। যেখানে ৩২ বছর বয়সী এ তারকা এই চ্যাম্পিয়নস লিগ আসরে ১১৪টি গোল করে সর্বকালের সর্বোচ্চ গোল দাতা হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করে রেখেছেন।

পাশাপাশি এদিন আরও একটি রেকর্ড গড়লেন রোনালদো। এই রেকর্ডে তিনি আবার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী লিওনেল মেসির রেকর্ডে ভাগ বসান। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গ্রুপ পর্বে সর্বোচ্চ ৬০ গোলের রেকর্ড যৌথভাবে বর্তমানের সেরা দুই ফুটবলারের দখলে।

দুই গোলে পিছিয়ে থাকা বুরুশিয়া আক্রমণের ধার বাড়িয়ে দেয়। পরে ৪৩ ও ৪৮ মিনিটে জোড়া গোল করে সফরকারীদের সমতায় ফেরান আবামেয়াং। কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি। খেলার ৮১ মিনিটে ভাজকুয়েজ রিয়ালের হয়ে গোল করলে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে জিদান শিষ্যরা।

গ্রুপ ‘এইচ’ থেকে রিয়াল রানার্সআপ হয়ে শেষ ষোলোয় উঠলো। যেখানে দলটির পয়েন্ট ১৩। পয়েন্ট মাত্র ২। আর আগেই গ্রুপ সেরা নিশ্চিত হওয়া টটেনহ্যাম হটস্পারের পয়েন্ট ১৬।

উপরে