পিছিয়ে পড়েও জয় ম্যানইউর

প্রকাশের সময়: ১২:৫২ অপরাহ্ন - বুধ, ডিসেম্বর ৬, ২০১৭

m

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্ক : শেষ ম্যাচটা ছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের জন্য বেশ গুরুত্বপূর্ণ। কারণ, চ্যাম্পিয়ন্স লিগের দ্বিতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করতে হলে শেষ ম্যাচটা জিতেই হবে। ড্র করলেও চলতো। তবে, রাশিয়ান চ্যাম্পিয়ন সিএসকেএ মস্কোর সঙ্গে প্রথমে পিছিয়ে পড়েও দারুণ এক জয় নিয়ে গ্রুপের শীর্ষে থেকেই নকআউট পর্ব নিশ্চিত করেছে হোসে মরিনহোর দল।

তবে ‘এ’ গ্রুপে ম্যানইউর জন্য হিসাব-নিকাশ কিছুটা সহজই ছিল। পয়েন্ট টেবিলে তাদের যে অবস্থান, তাতে তারা যদি হেরেও যেতো, হয়তো গোলপার্থক্যের নিরিখে শেষ ষোলোয় যাওয়া আটকাত না৷ তবে ঘরের মাঠে বিধ্বস্ত হলে প্রি-কোয়ার্টারের আগে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের আত্মবিশ্বাসে ধাক্কা লাগত নিশ্চিত৷

যদিও তেমন পরিস্থিতি তৈরি হওয়ার অবকাশই দেয়নি হোসে মোরিনহোর শিষ্যরা। নিজেদের মাঠ ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে শুরুতে পিছিয়ে পড়েছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

প্রথমার্ধের একেবারে শেষ মিনিটে গোল করে বসেন ভিতিনহো। মারিও ফার্নান্দেসের পাস থেকে বল পেয়ে বাম পায়ের শটে ম্যানইউর জাল কাঁপান ভিতিনহো। দ্বিতীয়ার্ধে জ্বলে ওঠে ম্যানইউ। ২ মিনিটের ব্যবধানে শুধু গোল শোধ করাই নয়, জয়ও নিশ্চিত করে ফেলে রেড ডেভিলসরা। ২ মিনিটের ব্যবধানে রোমেলু লুকাকু এবং মার্কাস রাশফোর্ডের দুর্দান্ত দুটি গোলের কারণে শেষ পর্যন্ত ২-১ ব্যবধানে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে ম্যানইউ।

৬৪ মিনিটে পল পগাবর কাছ থেকে বল পেয়ে বাম পায়ের দুর্দান্ত এক শট নেন রোমেলু লুকাকুর। সোজা সেটি গিয়ে জড়িয়ে যায় মস্কোর জালে। এই গোলেই ম্যাচে সমতা ফেরায় ম্যানইউ। ৬৬ মিনিটে হুয়ান মাতার পাস থেকে বল পেয়ে মার্কাস রাশফোর্ডও বাম পায়ের শট নেন সিএসকেএ মস্কোর পোস্ট লক্ষ্যে। সেটাই জড়িয়ে যায় জালে।

সিএসকেএ মস্কোর বিরুদ্ধে জয়ের ফলে ৬ ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে ‘এ’ গ্রুপের শীর্ষে থেকেই শেষ ষোলয় গেলো ম্যানইউ। অপর ম্যাচে বেনফিকাকে ২-০ গোলে হারিয়ে এফসি বাসেল ‘এ’ গ্রুপ থেকে দ্বিতীয় দল হিসাবে নকআউটের টিকিট পাকা করলো। ৬ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট দাঁড়াল ১২। ম্যানইউর কাছে হারলেও উয়েফা ইউরোপা লিগে অংশ নেওয়ার ছাড়পত্র পেয়ে গেল সিএসকেএ মস্কো।

উপরে